ঢাকা, বাংলাদেশ │ শনিবার, ২৮ মে ২০২২
প্রচ্ছদ » আন্তর্জাতিক » মধ্যপ্রাচ্য » মন্ত্রীর ঘোষণার পরও পদক্ষেপ নেই অধিকাংশ দূতাবাসের, ওমানে বিক্ষোভ

মন্ত্রীর ঘোষণার পরও পদক্ষেপ নেই অধিকাংশ দূতাবাসের, ওমানে বিক্ষোভ

স্বেচ্ছায় দেশে ফিরতে চাওয়া প্রবাসীদের নিবন্ধন বা তালিকা করতে দূতাবাসগুলোকে নির্দেশের পরও অধিকাংশ শ্রম উইংই পদক্ষেপ নেয়নি। এতে করে অনেক দেশে প্রবাসীদের মাঝে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। ওমানে দূতাবাসের সামনে বিক্ষোভও করেছে অনেক প্রবাসী কর্মী।

৩১ মে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থানমন্ত্রী ইমরান আহমদ সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে দূতাবাসের শ্রম উইংকে নির্দেশনা দেন। তিনি বলেছিলেন, “যে সকল প্রবাসী স্বেচ্ছায় নিজেদের খরচে বা কোম্পানীর খরচে দেশে ফিরতে চান, তাদেরকে দূতাবাসে গিয়ে নিবন্ধিত হতে হবে।” এ বিষয়ে দূতাবাসগুলোকে নির্দেশনা দিবেন কি না? এমন প্রশ্নে মন্ত্রী বলেন, ” নির্দেশনা এখনই দিয়ে দিলাম এবং আজই পাঠিয়ে ( নির্দেশনার চিঠি ) দেয়া হবে।” এই খবর বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রচার হয়। এতে করে দীর্ঘ দিন অপেক্ষায় থাকা প্রবাসীদের মাঝে আশা জাগে দেশে ফেরার।

এরপর ৩ জুন কাতার, ইরাক ও মালদ্বীপে বাংলাদেশ দূতাবাস থেকে অনলাইনে নিবন্ধনের জন্য বিজ্ঞপ্তি দেয়া হয়। ৭ জুন বাহরাইন দূতাবাস থেকেও বিজ্ঞপ্তি দেয়া হয়। এজন্য অনলাইন লিংকও দেয়া হয় বিজ্ঞপ্তিতে । কিন্তু অন্য দূতাবাস ‌এ বিষয়ে কোন ঘোষণা বা বিজ্ঞপ্তি এখনো দেয়নি।

মঙ্গলবার( ( ৯ জুন ) ওমানে বাংলাদেশ দূতাবাসের সামনে কয়েকশ’ প্রবাসী দেশে ফেরার নিবন্ধনের জন্য জড়ো হন। তারা দূতাবাসের কর্মকর্তাদের সাথে যোগাযোগ করলে, বলা হয় মন্ত্রীর এমন কোন নির্দেশনা তারা পাননি। প্রবাসীরা জানান, “মন্ত্রীর এই ঘোষণার খবরকে সঠিক নয় বলেছে দূতাবাসের কর্মকর্তারা। কিন্তু আমরা তো মন্ত্রীর বক্তব্য শুনেছি ও দেখেছি। তাহলে কোনটা মিথ্যা আর কোনটা সত্য?”

এ বিষয়ে জানতে দূতাবাসের শ্রম কাউন্সেলর ও প্রথম সচিবকে ফোন দেয়া হলেও তাদেরকে পাওয়া যায়নি।

এদিকে সৌদি আরব থেকে জরুরি দেশে ফিরতে চাওয়া প্রবাসীদের জন্য বিশেষ ফ্লাইটের ব্যবস্থা করছে দূতাবাস ও বিমান। এবিষয়ে দুই প্রতিষ্ঠানের মধ্যে আলাপ আলোচনা চলছে বলে জানিয়েছেন দেশটিতে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত গোলাম মসিহ। তিনি প্রবাস বার্তাকে বলেন, ভাড়া নির্ধারণ না হওয়ায় এখনো ফ্লাইটের বিষয়টি চুড়ান্ত হয়নি। শিখগিরই ভাড়া ঠিক হলে এ বিষয়ে ঘোষণা দেয়া হবে বলে জানান রাষ্ট্রদূত।

মতামত দিন