শনিবার, ২০ জুলাই ২০২৪, ৫ শ্রাবণ ১৪৩১

কাজের সন্ধানে বেরিয়ে অপহরণের শিকার ৬ রোহিঙ্গা

কাজের সন্ধানে বেরিয়ে অপহরণের শিকার ৬ রোহিঙ্গা

কাজের সন্ধানে বেরিয়ে অপহরণের শিকার ৬ রোহিঙ্গা

কাজের সন্ধানে বেরিয়ে অপহরণের শিকার ৬ রোহিঙ্গা

কক্সবাজার টেকনাফের হোয়াইক্যং ইউপির চাকমারকুল ২১নং রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ৬ জন রোহিঙ্গা শরণার্থী অপহরণের শিকার হয়েছেন। মুক্তিপণ না পেলে তাদেরকে মেরে ফেলার হুমকি দেওয়া হয়েছে।

শুক্রবার টেকনাফের ২১নং রোহিঙ্গা ক্যাম্পের পার্শ্ববর্তী স্থানীয় বেলাল (৩৫) নামে এক ব্যক্তির মাধ্যমে ৬ জন রোহিঙ্গা হ্নীলা ইউনিয়নে কাজের সন্ধানে যান। সেখানে অজ্ঞাত পাহাড়ি সন্ত্রাসীরা তাদের অপহরণ করে নিয়ে যায়। শনিবার তাদের পরিবার বিষয়টি গণমাধ্যমকে জানায়।

অপহৃতরা হলেন- চাকমারকুল ২১নং রোহিঙ্গা ক্যাম্পের শরণার্থী আমির হাকিমের ছেলে মো. ফরোয়াস (২০), মো. জুহার (৩০), মোহাম্মদ ইসলামের ছেলে মো. নূর (৩৫), আবুল হোসেনের ছেলে নুরুল হক (৩০), ইউসুফের ছেলে জাহিদ হোসেন (৩৫), আব্দুস সালামের ছেলে মো. ইদ্রিস (১৯)।

ভুক্তভোগী পরিবার সূত্রে জানা গেছে, অপহৃত মোহাম্মদ নুরের ফোন নাম্বার থেকে আরেক অপহৃত জুহারের স্ত্রীর কাছে ফোন করে জনপ্রতি ৫০ হাজার করে মুক্তিপণ দাবি করেছে পাহাড়ি সন্ত্রাসীরা। টাকা দিতে না পারলে তাদের মেরে ফেলার হুমকি দিয়েছে বলেও জানান অপহৃত জুহারের স্ত্রী শফিকা বেগম।

অপহৃত জুহার ও ফরোয়াজের বাবা আমির হাকিম জানান, আমাদের ক্যাম্পের পাশের বেলাল নামে একজন বাঙালি ছেলে ৬ জনকে মাটির কাটার কথা বলে হ্নীলা পাঠিয়েছেন। তারা (অপহৃতরা) হ্নীলা যাওয়ার পরে মোবাইল বন্ধ পাওয়া যায়। আর তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারিনি।

২১নং রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ইনচার্জ মো. মোস্তাফিজুর রহমান জানান, ৬ জন অপহরণের বিষয়টি আমরা শুনেছি এবং বিষয়টি এপিবিএনকে (আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন) জানিয়েছি। আরও ভালো খবর জানতে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করতে বলেন তিনি।

উল্লেখ্য, গত ৮ জানুয়ারি টেকনাফের হ্নীলা ৬নং ওয়ার্ড লেচুয়াপ্রাং হতেও ৪ স্থানীয় কৃষককে অপহরণ করে ১৪ লাখ টাকা মুক্তিপণ নিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়।

আরও পড়ুন:

আরও পড়ুন

বাংলার শিরোনাম ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

সর্বশেষ সংবাদ