রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

এসএসসির ব্যবহারিক পরীক্ষা নেওয়ার জরুরি নির্দেশনা

এসএসসির ব্যবহারিক পরীক্ষা নেওয়ার জরুরি নির্দেশনা

দিনাজপুর বোর্ডের স্থগিত ৪ বিষয়ের পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা

দিনাজপুর বোর্ডের স্থগিত ৪ বিষয়ের পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা

এসএসসি ও সমমানের লিখিত পরীক্ষা শেষ হয়েছে। এখন এসএসসির ব্যবহারিক পরীক্ষা শুরু হবে আগামী সোমবার থেকে।

সম্প্রতি ব্যবহারিক পরীক্ষা নেওয়ার জন্য পরীক্ষকদের প্রতি জরুরি নির্দেশনা জারি করেছে ঢাকা মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড (মাউশি)।

মাউশির ওয়েবসাইটে দেওয়া এক বিজ্ঞপ্তিতে এ নির্দেশনা জারি করা হয়।

এসএসসির ব্যবহারিক পরীক্ষা নেওয়ার নির্দেশনা তুলে ধরা হলো-

পদার্থ : ২৫ নম্বরের ব্যবহারিক পরীক্ষা নেওয়া হবে। পরীক্ষার্থীদের প্রশ্নে উল্লেখিত যেকোনো একটি পরীক্ষণ সম্পন্ন করতে হবে। শিক্ষকদের উপস্থিতিতে লটারির মাধ্যমে পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষণ বণ্টন করা হবে। একজন পরীক্ষার্থী সর্বোচ্চ দুইবার লটারির সুযোগ পাবেন।

পরীক্ষায় তত্ত্বে ৩ নম্বর, তথ্য সংগ্রহ, ছক ও চিত্রে ৬ নম্বর, হিসাবে ৩ নম্বর, ফলাফলে ১ নম্বর, সতর্কতায় ২ নম্বর থাকবে। আর ব্যবহারিক নোট বুকে ৫ নম্বর থাকবে। কাজে পরিচ্ছন্নতা ও শিক্ষকের নিয়মিত স্বাক্ষরের ভিত্তিতে ব্যবহারিক নোট বুকে শিক্ষার্থীদের নম্বর দেওয়া হবে। মৌখিক পরীক্ষার নম্বর হবে ৫। এতে পরীক্ষকরা পরীক্ষার্থীর পরীক্ষণের ওপর জ্ঞান যাচাইয়ে প্রাধান্য দেবেন। তবে, পাঠ্যসূচির অন্তর্ভুক্ত যেকোনো প্রশ্ন করা যাবে।

রসায়ন : এই বিষয়ের ব্যবহারিক পরীক্ষা হবে ২৫ নম্বরে। পরীক্ষার্থীদের প্রশ্নে উল্লেখিত যেকোনো একটি পরীক্ষণ সম্পন্ন করতে হবে। শিক্ষকদের উপস্থিতিতে লটারির মাধ্যমে পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষণ বণ্টন করা হবে। একজন পরীক্ষার্থী সর্বোচ্চ দুইবার লটারির সুযোগ পাবেন।

এতে প্রয়োজনীয় যন্ত্রপাতি ও রাসায়নিক দ্রব্যাদির নাম ও তত্ত্বে ৩ নম্বর থাকবে। যন্ত্রপাতি সাজানো, যথাযথ ব্যবহার ও কার্যপ্রণালীর জন্য ৪ নম্বর, ধর্ম পরীক্ষা ও ফল লিখনে ৬ নম্বর এবং পরীক্ষার পরিচ্ছন্নতা ও সতর্কতায় ২ নম্বর থাকবে। ব্যবহারিক নোট বুকে কাজের পরিমাপ ও পরিচ্ছন্নতা এবং শিক্ষকের নিয়মিত স্বাক্ষরের ওপর ভিত্তিতে নম্বর দেওয়া হবে। নোটবুকে নম্বর হবে ৫। আর মৌখিক পরীক্ষা হবে ৫ নম্বরে। মৌখিক পরীক্ষার পরীক্ষকরা পরীক্ষণের ওপর জ্ঞান যাচাইয়ে প্রাধান্য দেবেন। তবে, পাঠ্যসূচির অন্তর্গত যেকোনো প্রশ্ন জিজ্ঞাসা করা যাবে।

জীববিজ্ঞান : জীববিজ্ঞান বিষয়ের ব্যবহারিক পরীক্ষায় পূর্ণমান হবে ২৫ নম্বর। এতে পরীক্ষণের নামে ১ নম্বর, উপকরণ ও যন্ত্রপাতির নামে ১ নম্বর, কার্যপদ্ধতি ও প্রদর্শনে ৩ নম্বর, চিত্রাঙ্কণে ৩ নম্বর, চিত্রচিহ্নিত করায় ২ নম্বর, পর্যবেক্ষণে ২ নম্বর, সিদ্ধান্তে ২ নম্বর এবং সতর্কতায় ১ নম্বর থাকবে। এ ছাড়া উপস্থাপনকৃত পরীক্ষণটির ফল ব্যাখ্যায় ৪ নম্বর, মৌখিক পরীক্ষা ৪ নম্বর এবং ব্যবহারিক খাতা ও শিটে ২ নম্বর থাকবে।

উচ্চতর গণিত : উচ্চতর গণিতের ব্যবহারিক পরীক্ষা নিয়ে পরীক্ষকদের পাঠানো নির্দেশনায় বলা হয়েছে- লটারির মাধ্যমে পরীক্ষার্থীদের মধ্যে পরীক্ষণ বণ্টন করতে হবে। প্রত্যেক পরীক্ষার্থীকে দুটি পরীক্ষণ করতে হবে। প্রত্যেক পরীক্ষার্থী পরীক্ষণের জন্য সর্বাধিক দুবার লটারির সুযোগ পাবেন।

উচ্চতর গণিত পরীক্ষায় পরিকল্পনা প্রণয়নে নম্বর হবে ২, সঠিক প্রক্রিয়া অনুসরণে ৩ নম্বর, লেখাচিত্র অঙ্কন ও উপাত্ত বিশ্লেষণে ৩ নম্বর, ব্যাখ্যাসহ ফল উপস্থাপনে ২ নম্বর থাকবে। আর মৌখিত অভিক্ষায় মৌখিক প্রশ্ন পাঠ্যসূচির মধ্যে হবে। পরীক্ষণের ওপরও প্রশ্ন করা যাবে।

কৃষি শিক্ষা : কৃষি শিক্ষার ব্যবহারিক পরীক্ষায় পূর্ণমান হবে ২৫। পরীক্ষার্থীদের যেকোনো একটি পরীক্ষণ করতে হবে। এতে ১৫ নম্বর থাকবে। আর ব্যবহারিক খাতায় ৫ নম্বর ও মৌখিক পরীক্ষায় ৫ নম্বর থাকবে।

চারু ও কারুকলা : চারু ও কারুকলায় ব্যবহারিক পরীক্ষায় পরীক্ষার্থী দৃশ্য ও নকশা অঙ্কনের জন্য রং (জল রং ছাড়া) জ্যামিতি বক্স, স্কেল, পেনসিল, ইরেজার ইত্যাদি নিজে নিয়ে আসবে। হল কর্তৃপক্ষ ব্যবহারিক উত্তরপত্র সরবরাহ করবেন। পরীক্ষার্থীরা ওই ব্যবহারিক উত্তরপত্রে দৃশ্য ও নকশা অঙ্কন করবে।

সংগীত : সংগীত বিষয়ের ব্যবহারিক পরীক্ষায় পরীক্ষকরা প্রশ্নপত্র অনুযায়ী পরীক্ষা গ্রহণ করবেন। পরীক্ষার্থীর গায়নরীতি, সুর, তাল, লয়, উচ্চারণ ও বাণীর প্রতি লক্ষ্য রেখে নম্বর দেবেন।

গার্হস্থ্য বিজ্ঞান : ব্যবহারিক পরীক্ষায় প্রয়োজনীয় উপকরণ কলম, পেনসিল, স্কেল, রাবার, বোর্ড, পেপার ও আলপিন আনতে হবে। আর প্রয়োজনীয় উপকরণ হিসেবে আরও লাগবে ডিম, দুধ, চিনি, ভ্যানিলা এসেন্স।

আরও পড়ুন:

আরও পড়ুন

বাংলার শিরোনাম ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

সর্বশেষ সংবাদ